একটু অন্যরকম খবর : কবে খুলছে দেশের স্কুল? বড়সড় ঘোষণার পথে কেন্দ্র।

Published by BADGEB Admin on

Last Updated 7:21 PM 26th May 2020 .

আজকে একটু অন্যরকম খবর করতে বাধ্য হলাম আমরা কারণ, ইস্টবেঙ্গল সমর্থকদের কাছে আমরা দায়বদ্ধ হলেও এই বিপর্যয়ের মধ্যে আমাদের সমাজের প্রতি দায়িত্ববোধও অনেকটাই বেড়ে যায় আর তাই এই মুহূর্তের গুরুত্বপূর্ণ একটা খবর সকলের কাছে পৌঁছে দিচ্ছি যার অপেক্ষায় আছে দেশের আপামর শিক্ষা সমাজ।

বড়সড় ঘোষণার পথে কেন্দ্র। জুলাই মাসে স্কুল খোলার অনুমতি দেওয়া হবে কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে। তবে জানানো হয়েছে উপস্থিতির হারে শিথিলতা থাকবে। অর্থাৎ তিরিশ শতাংশ উপস্থিতিকেও গ্রাহ্য করতে হবে স্কুলগুলোকে। এছাড়াও জানানো হয়েছে প্রথম শ্রেণী থেকে সপ্তম শ্রেণী পর্যন্ত পড়ুয়াদের স্কুলে আসতে হবেনা। অষ্টম শ্রেণী থেকে দ্বাদশ শ্রেণী পর্যন্ত পড়ুয়ারা স্কুলে আসতে পারবেন।

কেন্দ্রীয় সরকার জানিয়েছে জোন ভিত্তিক স্কুলগুলি খোলা হবে। অর্থাৎ প্রথমে গ্রীন জোনের স্কুল খোলা হবে। এরপর ধীরে ধীরে অরেঞ্জ এবং সব শেষে রেড জোনের স্কুল খোলা হবে। রিপোর্ট জানাচ্ছে, প্রাথমিক শ্রেণীর পড়ুয়ারা লকডাউনের নিয়ম মেনে চলতে পারবেনা, তাই বাড়ি থেকেই পড়াশুনা চালাতে হবে তাদের।

সরকারি আধিকারিকরা জানাচ্ছেন, স্কুল খোলার জন্য নির্দিষ্ট কিছু নিয়মকানুন তৈরি করা হবে। এই সপ্তাহের শেষের দিকেই তা চড়ান্ত করে প্রকাশ করা হবে এবং এই বিষয় চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রী। ১৬ই মার্চ থেকে স্কুল বন্ধ হয়েছে গোটা দেশ জুড়ে এবং বর্তমানে প্রায় দুমাসের উপরে বন্ধ দেশের সমস্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান।

১৪ই মে মানব সম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রী রাকেশ পোখরিয়াল ইঙ্গিত দিয়েছিলেন খুব তাড়াতাড়ি খুলে দেওয়া হবে স্কুল। তবে ৩০% উপস্থিতি রাখা যাবে ছাত্র ছাত্রীদের, শিক্ষক শিক্ষিকাদের মাস্ক ও গ্লাভস ব্যবহার করতে হবে। স্কুল গুলিতে রাখতে হবে থার্মাল স্ক্যানিংয়ের ব্যবস্থা। তিন আসন বিশিষ্ট বেঞ্চে বড়জোর দুজন পড়ুয়া বসতে পারবে। এমনি নানান বিধিনিষেধ মেনে তবেই আবার পড়াশুনা শুরু হবে স্কুলগুলিতে বলে খবর। তবে এই ঘাটতি পূরণ করতে সিলেবাস ছোট করা হবে নাকি সময় বাড়ানো হবে সেটা এখনো আলোচনা পর্যায় আছে।

Categories: Uncategorized

0 Comments

Leave a Reply

0 Shares
Copy link
Powered by Social Snap